শনিবার, ২০ এপ্রিল, ২০২৪, ঢাকা

ট্রফি খুইয়ে তিন শব্দে যা বললেন এমবাপে

স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৯ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৪৫ পিএম

শেয়ার করুন:

ট্রফি খুইয়ে তিন শব্দে যা বললেন এমবাপে

পুরো বিশ্বকাপে তার পা থেকে এসেছে আটটি গোল। ফাইনালে করেছেন হ্যাটট্রিক। তবুও বিশ্বকাপের মঞ্চ থেকে খালি হাতে ফিরতে হয়েছে ফরাসি সুপারস্টার কিলিয়ান এমবাপেকে। গোল্ডেন বুটের ট্রফিটা নিয়ে যখন বিশ্বকাপের সোনালি ট্রিফিরা পাশ দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলেন এমবাপে, তখন হয়তো ভাবছিলেন ১৬ বছর আগের জিদানকে। রোববার রাতে এমনই এক হৃদয় বিদারক ঘটনার সাক্ষী হলো কাতারের লুসাইলে স্টেডিয়াম। 

২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপে মাত্র ১৯ বছর বয়সেই ট্রফির স্বাদ পেয়েছিলেন এমবাপে। এবারও প্রায় একাই লড়াই করে ফাইনালে দলকে প্রায় জিতিয়ে দিয়েছিলেন। অল্পের জন্য তা হয়ে উঠেনি। ম্যাচ শেষে সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হননি এমবাপে। তবে ম্যাচের প্রায় ১৭ ঘণ্টা পর নিজের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন তিনি। মাত্র তিন শব্দের সেই প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, ‘আমরা ফিরে আসব’,। এমবাপের এমন বার্তায় অনেকেই মনে করছেন, আগামী বিশ্বকাপের জন্য নতুন উদ্যমে শুরু করবেন এমবাপে। বর্তমানে তিনি যে ছন্দে আছেন, তা ধরে রাখতে পারলে আগামীতে অন্তত তিনটি বিশ্বকাপে খেলতে পারেন এই পিএসজি তারকা। এর সঙ্গে সুযোগ আছে একাধিক রেকর্ড ভাঙ্গারও।


বিজ্ঞাপন


আরও পড়ুন- আর্জেন্টাইন বাজপাখির অবিশ্বাস্য সেই মুহূর্ত

রোববারের ফাইনালে প্রথমার্ধে এমবাপেকে বেশ ভালোভাবেই আটকে রেখেছিল আর্জেন্টিনা। তার প্রধান অস্ত্র মাঠের প্রান্ত ধরে দৌড়। তবে তার সেই দৌড় দমাতে মোলিনা ও ম্যাক অ্যালিস্টারকে রেখেছিলেন আর্জেন্টাইন কোচ লিওনেল স্ক্যালোনি। এতে করে বার বার আটকে যাচ্ছিলেন তিনি। ফরাসি কোচ দিদিয়ে দেশম জিরুদকে তুলে নেওয়ার পর প্রধান স্ট্রাইকারের ভূমিকায় চলে যান এমবাপে। ফলে আরও বেশি নিষ্প্রভ হয়ে পড়েন তিনি। প্রথমার্ধে মাত্র এক বারের জন্য আর্জেন্টিনার বক্সে ঢুকতে পেরেছিলেন এমবাপে।

তবে দ্বিতীয়ার্ধে খেলার বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে দাপট দেখাতে শুরু করেন এমবাপে। বক্সের মধ্যে আর্জেন্টাইন ডিফেন্ডার ওটামেন্ডি ফাউল করায় পেনাল্টি পায় ফ্রান্স। জোরালো শটে স্পট কিক থেকে গোল করেন এমবাপে। দুই মিনিট পরেই বক্সের মধ্যে থেকে ডান পায়ের দারুণ শটে ফ্রান্সের হয়ে দ্বিতীয় গোলটিও করেন তিনি।


বিজ্ঞাপন


আরও পড়ুন- মেসির স্ত্রীর আবেগঘন স্ট্যাটাস

ম্যাচ অতিরিক্ত সময়ে গড়ালে মেসির গোলে আর্জেন্টিনা আবারও এগিয়ে যায়। তবে তখনও মাঠে ছিলেন এমবাপে। বক্সের বাইরে থেকে গোল লক্ষ্য করে দারুণ এক শট মারেন তিনি। বক্সের মধ্যে সেই বল পারেদেসের হাতে লাগায় পেনাল্টি পায় ফ্রান্স। আরও একবার স্পট কিক থেকে নেওয়া শটে দলকে শেষবারের মতো আনন্দের উপলক্ষ্য এনে দেন এমবাপে। সেই সঙ্গে মেসিকে টপকে বিশ্বকাপে সব থেকে বেশি ৮ গোলের মালিক বনে যান তিনি।

তবে তার পরও ম্যাচ জিততে পারেনি ফ্রান্স। টাইব্রেকার থেকে এমবাপে গোল পেলেও তার দুই সতীর্থের শট বাঁচিয়ে দেন এমিলিয়ানো মার্টিনেস। শেষ পর্যন্ত হার নিয়েই বিশ্বকাপ ছাড়তে হয় গত আসরের চ্যাম্পিয়নদের।

এফএইচ

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

টাইমলাইন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর