ঢাকার খামারে উট, দাম ১৩ লাখ টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪ জুলাই ২০২২, ০৫:৩৪ পিএম
ঢাকার খামারে উট, দাম ১৩ লাখ টাকা

বাংলাদেশে প্রধানত গরু, মহিষ, ছাগল কোরবানি করা হয়। কিছু সংখ্যক দুম্বা ও উটও কোরবানি করা হয়। আর কোরবানিতে বাড়তি আকর্ষণ হয়ে থাকে উট। 

সোমবার (৪ জুলাই) রাজধানীর মোহাম্মদপুরের সাদেক এগ্রোতে একটি উট দেখা গেছে। 

লম্বা গড়নের উটটির জন্য খামার কর্তৃপক্ষ দাম হাঁকছেন ১৩ লাখ টাকা।

কর্তৃপক্ষ জানায়, এই খামারে দুটি উট ছিল। একটি ২০ লাখ টাকায় বিক্রি করা হয়। অন্যটি বিক্রির জন্য ১৩ লাখ টাকা দাম চাওয়া হচ্ছে।

এদিকে খামারে কোরবানির পশু কিনতে আসা ক্রেতাদের অনেকের সাধ্য না থাকলেও একবার দেখে যাচ্ছেন উটটি। আবার সাধারণ দর্শনার্থীদেরও উপচেপড়া ভিড় উট দেখতে। 

সাদেক এগ্রোর খামারে উট দেখতে আসা মাদরাসা শিক্ষার্থী আল আমিন ঢাকা মেইলকে বলেন, ‘উট আগে দেখি নাই। তাই দেখতে আসলাম। অনেক বড়!’

অপর এক দর্শনার্থী সুমন হোসেন বলেন, ‘উট তো বেশি দেখা যায় না। এই খামারে প্রতি বছর আনে। আমরাও দেখতে আসি।'

দেশের সবচেয়ে বড় খামার হিসেবে পরিচিত সাদেক এগ্রোর খামার ঘুরে দেখা যায়, উট ছাড়াও খামারটি দুম্বা, বিভিন্ন প্রজাতির ছাগল, ভেড়া, মহিষ ও বিভিন্ন জাতের গরু রয়েছে।

এর মধ্যে লাখ টাকার নিচে গরু মিলছে না এই খামারে। সর্বোচ্চ ২০ লাখ টাকা দামেরও গরু রয়েছে সাদেক এগ্রোর কাছে। আর ছাগলের দাম ৫০ হাজার থেকে আড়াই লাখ টাকার মধ্যে। এক থেকে তিন লাখ টাকার মধ্যে রয়েছে ভেড়া। গোলাপি মহিষের দাম চাওয়া হচ্ছে পাঁচ থেকে সাড়ে পাঁচ লাখ টাকা। 

এদিকে রাজধানীর গাবতলির স্থায়ী হাট, মোহাম্মদপুর বসিলার অস্থায়ী হাট, হাজারীবাগের অস্থায়ী হাটসহ বেশ কিছু হাট ঘুরেও এখনো উটের দেখা মেলেনি। 

কারই/ একেবি

টাইমলাইন