শুক্রবার, ২১ জুন, ২০২৪, ঢাকা

স্পিকারকে পদত্যাগপত্র দিয়েছেন বিএনপির এমপিরা

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১১ ডিসেম্বর ২০২২, ১২:১২ পিএম

শেয়ার করুন:

স্পিকারকে পদত্যাগপত্র দিয়েছেন বিএনপির এমপিরা

বিএনপির সাতজন সংসদ সদস্য জাতীয় সংসদের স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর কাছে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন। 

রোববার (১১ ডিসেম্বর) বেলা সোয়া ১১টার দিকে জাতীয় সংসদ সচিবালয়ে গিয়ে পদত্যাগপত্র জমা দেন তারা।


বিজ্ঞাপন


স্পিকারের কাছে সশরীরে পদত্যাগপত্র জমা দেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের মো. আমিনুল ইসলাম, বগুড়া-৪ আসনের মো. মোশাররফ হোসেন, বগুড়া–৬ আসনের গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ, ঠাকুরগাঁও-৩ আসনের জাহিদুর রহমান এবং সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য রুমিন ফারহানা।

তবে বিদেশে থাকায় চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য হারুন অর রশিদ এবং অসুস্থতার কারণে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের সংসদ সদস্য আবদুস সাত্তার সশরীরে উপস্থিত ছিলেন না। তাদের পক্ষে স্পিকারের কাছে পদত্যাগপত্র জমা দেন ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা।

পদত্যাগপত্র জমা দিয়ে জাতীয় সংসদ ভবন থেকে বেরিয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন বিএনপির এমপিরা। তারা বলেন, সংসদে জনগণের পক্ষে কথা বলার কোনো সুযোগ নেই। এজন্য সরকার পতনের আন্দোলন জোরদার করতেই একাদশ জাতীয় সংসদ থেকে পদত্যাগ করেছেন তারা।

ভেতরে প্রবেশের আগে গণমাধ্যমকর্মীদের সঙ্গে আলাপকালে বগুড়া-৬ আসনের সংসদ সদস্য গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ বলেন, গতকাল (শনিবার) সংসদ বন্ধ থাকায় আমরা ইমেইলে পদত্যাগপত্র পাঠিয়েছিলাম স্পিকারের কাছে। আজ আমরা সশরীরে পদত্যাগপত্র জামা দিতে এসেছি।


বিজ্ঞাপন


তিনি আরও বলেন, আমরা যখন জনগণের কথা বলতাম, ৩৫০ জনের মধ্যে শুধু ৭ জনের কথা জনগণ শুনতো। ৩৪৩ জন যারা কথা বলতো, সেটা শুধু দেয়াল শুনতো, মানুষ শুনতো না। জাতীয় পার্টি যখন কথা বলতো, মানুষ অন্য চ্যানেলে চলে যেত। আমাদের আন্দোলনের এটাই শুরু, পদত্যাগ দিয়ে শুরু করেছি।

জিএম সিরাজ বলেন, ১০টি দফা দেওয়া হয়েছে। আগামী ২৪ ডিসেম্বর যুগপৎ আন্দোলন; আমাদের একই দফা, এই সরকারের পতন। জনগণ সরকারকে বাধ্য করবে নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকার গঠন করতে। এই দেশে মানুষ যাতে ভোটাধিকার ফিরে পেতে পারে, মানুষ যাতে বাকস্বাধীনতা ফিরে পায় এবং অনতিবিলম্বে এই সংসদ ভেঙে দিতে হবে।

শনিবার (১০ ডিসেম্বর) বিকেলে রাজধানীর গোলাপবাগে দলের ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশ থেকে বিএনপির দলীয় সাতজন এমপির পদত্যাগ করবেন বলে ঘোষণা দেন। গণসমাবেশে বিএনপির এমপিরা ধারাবাহিকভাবে বক্তব্য দিয়ে পদত্যাগ করার ঘোষণা দেন। তবে অসুস্থতার কারণে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের সংসদ সদস্য আবদুস সাত্তার ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য মো. হারুন অর রশিদ অস্ট্রেলিয়ায় থাকায় গণসমাবেশে উপস্থিত ছিলেন না।

টিএই/এমই/এএস

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

টাইমলাইন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর