রোববার, ২৬ মে, ২০২৪, ঢাকা

বহিষ্কৃত তৈমুরের ব্যাপক শোডাউন, বিএনপিতে ফেরার প্রত্যাশা

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:০৪ পিএম

শেয়ার করুন:

বহিষ্কৃত তৈমুরের ব্যাপক শোডাউন, বিএনপিতে ফেরার প্রত্যাশা

চলতি বছরের শুরুতে দলীয় পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়ার পর বহিষ্কারও হতে হয়েছে বিএনপি নেতা তৈমুর আলম খন্দকারকে। নারায়াণগঞ্জ সিটি নির্বাচনে মেয়র পদে অংশ নেওয়াকে কেন্দ্র করে এমন সিদ্ধান্ত হলেও এখনও দলের সব কর্মসূচি নিজের বলয়ের নেতাকর্মীদের নিয়ে পালন করছেন এই নেতা। সবশেষ শনিবার (১০ ডিসেম্বর) ঢাকার গোলাপবাগে বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশে প্রায় ১০ হাজার নেতাকর্মী নিয়ে শোডাউন করেছেন এই আইনজীবী।

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমান, চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানের ছবি সম্বলিত টি-শার্ট, ক্যাপ পরিহিত তার কর্মী সমর্থকরা মিছিলসহ সমাবেশে যোগ দেয়। তৈমুর আলম খন্দকার এতে নেতৃত্ব দেন।


বিজ্ঞাপন


এসময় তৈমুর আলম দলের প্রতি ভালোবাসা থেকে সমাবেশে যোগ দেওয়ার কথা জানান। তিনি আশা করছেন, দল তার সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে তাকে ফিরিয়ে নেবে।

১৮ জানুয়ারি দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে অ্যাডভোকেট তৈমুর আলম খন্দকারকে প্রাথমিক সদস্যসহ সব পর্যায়ের পদ থেকে বহিষ্কার করে বিএনপি। একই সঙ্গে তার নির্বাচনী প্রধান এজেন্ট নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামালকেও প্রাথমিক সদস্যসহ সব পর্যায়ের পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়।

১১ মাস ধরে বহিষ্কারাদেশ মাথায় নিয়ে ঘুরলেও মাঝে এটি প্রত্যাহার হওয়ার গুঞ্জন উঠেছিল। তবে বাস্তবে আর হয়নি।

toimur2


বিজ্ঞাপন


যদিও শুরু থেকেই তিনি দলের সব ধরনের কর্মসূচি নিজের মতো করে পালন করেছেন। এবারের বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় মহাসমাবেশে নারায়ণগঞ্জ থেকে বড় জমায়েত নিতে প্রস্তুতি নেন তৈমুর আলম খন্দকার।

সমাবেশে যোগ দিয়ে তৈমুর আলম খন্দকার গণমাধ্যমকে বলেন, দলের পক্ষ থেকে আমার ভাগ্যে কী আছে আমি জানি না। তবে এটুকু জানি, নারায়ণগঞ্জসহ সারাদেশের মানুষ জানে তৈমুর আলম বিএনপির একটি ব্র্যান্ড। দলে থাকি বা না থাকি আমি দলকে ভালোবাসি। সেই ভালোবাসার টানেই আজ এখানে এসেছি।

সমাবেশে ১০ হাজার নেতাকর্মী নিয়ে অংশ নিয়েছেন এমন দাবি করে তিনি বলেন, আমার বেশিরভাগ নেতাকর্মী দলের জন্য নিবেদিত প্রাণ। যার কারণে এমন দিনে তারা পায়ে হেঁটে নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন স্থান থেকে পায়ে হেঁটে সমাবেশে অংশ নিয়েছে।’

দল আমার বিষয়ে অবশ্যই ভালো কোনো সিদ্ধান্ত নেবে- এম আশা করে তৈমুর বলেন, ‘আশা করছি আমার ওপর জারি করা বহিষ্কারাদেশ দল পুনরায় বিবেচনা করবে। আমি আবারও দলের একজন দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা হিসেবে দলকে আরও শক্তিশালী করতে অবদান রাখব।’

বিইউ/জেবি

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

টাইমলাইন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর