মঙ্গলবার, ২৫ জুন, ২০২৪, ঢাকা

ঢাকার নিরাপত্তায় কাজ করছে ৩৪ হাজার পুলিশ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০ ডিসেম্বর ২০২২, ১২:৩৩ পিএম

শেয়ার করুন:

ঢাকার নিরাপত্তায় কাজ করছে ৩৪ হাজার পুলিশ

নিরাপত্তা বিধানে শুধু পুলিশের পক্ষ থেকে ৩৪ হাজার জনবল মোতায়েন করা হয়েছে। এর বাইরে র‌্যাব-আনসারও রয়েছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার (ক্রাইম অ্যান্ড অপস) এ কে এম হাফিজ আক্তার।

শনিবার (১০ ডিসেম্বর) সকালে সমাবেশ ঘিরে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা পরিদর্শনে এসে মতিঝিলের শাপলা চত্বরে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান তিনি।


বিজ্ঞাপন


এ কে এম হাফিজ আক্তার বলেন, শর্তসাপেক্ষে বিএনপিকে সমাবেশের অনুমতি দেওয়া হয়েছে। শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ শেষ করার দায়িত্ব বিএনপির। আশা করছি, শান্তিপূর্ণভাবেই সমাবেশ শেষ করে ফিরে যাবেন তারা।

police

হাফিজ আক্তার বলেন, সমাবেশ কেন্দ্রিক, সমাবেশস্থলসহ পুরো ঢাকায় নিরাপত্তা নিশ্চিতে র‌্যাব, আনসার, পুলিশ মোতায়েন আছে। ৩৪ হাজার পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। এর বাইরে র‌্যাব আনসার তো আছেই। মাঠে লোকজন যাচ্ছে। আয়োজকদের আমরা অনুরোধ করে বলেছি শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ শেষ করতে।

ডিএমপির এ অতিরিক্ত কমিশনার বলেন, অনুমতি পাওয়ার পর থেকেই অংশ নিতে বিএনপির নেতাকর্মীরা আসছেন। কাল রাত থেকেই আসছে, এখনো আসছে। সবকিছু এখনো স্বাভাবিক আছে, তারা জড়ো হচ্ছে। তারা শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ শেষ করে চলে যাবেন, সেটাই আমরা আশা করছি।


বিজ্ঞাপন


সার্বিক নিরাপত্তা সম্পর্কে তিনি আরও বলেন, সমাবেশ তো গোলাপবাগে। তবে পুরো ডিএমপি এলাকায় নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে প্রত্যেক বিভাগেই পুলিশ মোতায়েন করা আছে।

হাফিজ আক্তার বলেন, সমাবেশকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তা বিধানে সমাবেশস্থল ও এর আশপাশের এলাকায় বিপুল সংখ্যক পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। বিশেষ করে বাংলাদেশ ব্যাংকসহ কেপিআইভুক্ত সব প্রতিষ্ঠান ও স্থাপনার নিরাপত্তায় পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। চাইছি সমাবেশ শান্তিপূর্ণ হোক, জননিরাপত্তা বিঘ্নিত না হোক।

এর আগে সকালে নাইটিঙ্গেল মোড়ে ডিএমপির যুগ্ম কমিশনার বিপ্লব কুমার সাংবাদিকদের বলেন, সমাবেশকে কেন্দ্র করে বিএনপি কোনো ধরনের নাশকতা করার চেষ্টা করলে পুলিশ আইনগত ব্যবস্থা নেবে।

police

তিনি বলেন, সমাবেশ শেষ করে তারা শান্তিপূর্ণভাবে, স্বাভাবিকভাবে চলে যাবে এটি প্রত্যাশা করি। তারা (বিএনপি) নাশকতার চেষ্টা করলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তারা (বিএনপি) কোনোভাবেই যেন জনগণের জানমালের এবং আমাদের দায়িত্বরত সহকর্মীদের (পুলিশ) ক্ষতি করতে না পারে, সেজন্য পুলিশ সদস্যদের সর্বাবস্থায় সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে।

সমাবেশ ঘিরে নিরাপত্তার বিষয়ে সকালে কথা বলেন ডিএমপির গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) প্রধান মোহাম্মদ হারুন অর রশীদও। তিনি বলেছেন, সমাবেশকে ঘিরে আতঙ্ক ছিল, আজ তা নেই। মানুষ নির্বিঘ্নে সমাবেশে আসতে ও যেতে পারছেন। কাউকে বাধা দেওয়া হচ্ছে না, আটক করাও হচ্ছে না।

নয়াপল্টনে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে (ডিবি) প্রধান হারুন আরও বলেন, যেহেতু এটি একটি বৈধ সমাবেশ, তাই সমাবেশ শেষ করে বিএনপি চলে যেতে পারে। শান্তিপূর্ণ সমাবেশ হলে পুলিশ সহায়তা করবে। আর যদি কেউ নাশকতা করার চেষ্টা করে তাহলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ডব্লিউএইচ/এএস

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

টাইমলাইন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর