রোববার, ২১ এপ্রিল, ২০২৪, ঢাকা

বিশ্বের সেরা ১০ বিমানবন্দর

মাহমুদুল হাসান তুহিন
প্রকাশিত: ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৭:১৭ পিএম

শেয়ার করুন:

বিশ্বের সেরা ১০ বিমানবন্দর

বিশ্বের সেরা বিমানবন্দরের তালিকা প্রস্তুত করে থাকে স্কাইট্র্যাক্স নামে একটি প্রতিষ্ঠান। ১৯৯৯ সালে ‘ওয়ার্ল্ডস বেস্ট এয়ারপোর্ট অ্যাওয়ার্ড’ শুরু করে প্রতিষ্ঠানটি। সেরা বিমানবন্দর নির্ধারণের জন্য বেশ কিছু বিষয়কে ভিত্তি ধরে এই প্রতিষ্ঠানটি বিশ্বের বিভিন্ন বিমানবন্দরে জরিপ চালায়। সেরা বিমানবন্দর নির্বাচনের ক্ষেত্রে বিবেচনা করা হয় পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা, নিরাপত্তা, কর্মীদের সেবাপরায়ণতা, থাকা-খাওয়ার ব্যবস্থা, কেনাকাটার সুবিধা, ব্যাগেজ ডেলিভারি, ইমিগ্রেশন ব্যবস্থা, ট্রানজিট প্যাসেঞ্জারদের সুযোগ সুবিধা, বিনোদনের ব্যবস্থা, খরচ ইত্যাদি বিষয়। চলুন জেনে নিই স্কাইট্র্যাক্স অনুযায়ী ২০২২ সালের সেরা ১০টি বিমানবন্দর।

hamad
হামাদ ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট, কাতার

হামাদ ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট, কাতার

কাতারের দোহা শহর থেকে ১৮ কিলোমিটার দূরে হামাদ ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট। বিমানবন্দরটি চালু হয় ২০১৪ সালে। বছরে প্রায় ৩০ মিলিয়ন যাত্রী এই বিমানবন্দরটি ব্যবহার করে। এটিতে ২টি রানওয়ে রয়েছে। স্থাপত্যের দিক থেকে এটি অন্যতম সেরা বিমানবন্দর। বিশ্বের অন্যতম বিলাসবহুল বিমানবন্দর হিসেবেও ভাবা হয়। ২০২২ সালে এটি বিশ্বের সেরা বিমানবন্দর হিসেবে নির্বাচিত হয়।

টোকিও হানেডা ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট, জাপান

জাপানের টোকিও স্টেশন থেকে ১৪ কিলোমিটার দূরে বিমানবন্দরটি অবস্থিত। বিশ্বের অন্যতম ব্যস্ততম বিমানবন্দর এটি। বছরে প্রায় ৬০ মিলিয়ন যাত্রী টোকিও হানেডা ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট ব্যবহার করেন। এই বিমানবন্দরে মোট ৪টি রানওয়ে রয়েছে। এখানে ১১৫.৭ মিটার উঁচু একটি এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোল টাওয়ার রয়েছে।


বিজ্ঞাপন


changi airport
চাঙ্গি এয়ারপোর্ট, সিঙ্গাপুর

চাঙ্গি এয়ারপোর্ট, সিঙ্গাপুর

চাঙ্গি এয়ারপোর্ট গত দুই দশকে বেশ কয়েকবার বিশ্বের সেরা বিমানবন্দরের তালিকায় শীর্ষে ছিল। এই বিমানবন্দর থেকে বিশ্বের প্রায় ২০০টি গন্তব্যে বিমান যাতায়াত করে। ৮০টি আন্তর্জাতিক এয়ারলাইন্সের মাধ্যমে সপ্তাহে প্রায় ৫ হাজার উড্ডয়ন এবং অবতরণ হয় এই বিমানবন্দরে। এই বিমানবন্দরটিতে ৪টি টার্মিনাল রয়েছে। চতুর্থ টার্মিনালটি অটোমেশন পদ্ধতিতে পরিচালিত হয়। যাত্রী ভোগান্তি কমাতে ইমিগ্রেশন পদ্ধতি অটোমেশনের মাধ্যমে সম্পাদিত হয়। বিমানবন্দরটিতে ২৪ ঘণ্টা আপডেটেড ব্লকবাস্টার সিনেমা প্রদর্শিত হয়। বিমানবন্দরটি এখন পর্যন্ত ৫০০ এরও বেশি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করেছে।

টোকিও নারিতা এয়ারপোর্ট, জাপান

নারিতা জাপানের সর্ববৃহৎ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর। দেশটির নারিতা শহরে এটি অবস্থিত। বিমানবন্দরটির কিছু অংশ শিবায়ামা শহরে অবস্থিত। বিমানবন্দরটিতে ৪টি টার্মিনাল রয়েছে ও দুটি রানওয়ে রয়েছে। জাপানের দ্বিতীয় ব্যস্ততম বিমানবন্দর এটি।

ইঞ্চিয়ন ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট, দক্ষিণ কোরিয়া

ইঞ্চিয়ন ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট দক্ষিণ কোরিয়ার সবচেয়ে বড় বিমানবন্দর। ‘সিউল-ইঞ্চিয়ন ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট’ হিসেবেও এটি পরিচিত। দেশটির রাজধানী সিউল থেকে ৩২ মাইল দূরে এটি অবস্থিত। বিমানবন্দরটিতে ২টি টার্মিনাল রয়েছে। এটি বিশ্বের ষষ্ঠ কার্গো বিমানবন্দর। এটি ২.৭ মিলিয়ন টন কার্গো বহনে সক্ষম।

paris-cdg
প্যারিস শার্ল দ্য গোল বিমানবন্দর, ফ্রান্স

প্যারিস শার্ল দ্য গোল বিমানবন্দর, ফ্রান্স

প্যারিস শার্ল দ্য গোল বিমানবন্দর ফ্রান্সের বৃহত্তম আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর। প্যারিসের উত্তর-পূর্বে ২৩ কিলোমিটার (১৪ মাইল) দূরে রোসি-এন-ফ্রান্সে এটি অবস্থিত। বিমানবন্দরটি প্যারিস অ্যারোপোর্ট ব্র্যান্ডের অধীনে গ্রুপ এডিপি দ্বারা পরিচালিত হয়। বিমানবন্দরটিতে ৩টি টার্মিনাল রয়েছে।

মিউনিখ এয়ারপোর্ট, জার্মানি

জার্মানির দ্বিতীয় ব্যস্ততম বিমানবন্দর মিউনিখ এয়ারপোর্ট। এটি মিউনিখ শহর থেকে ৩০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত। এখানে ৩টি টার্মিনাল এবং ২টি রানওয়ে রয়েছে। ৩৮৯২ একর জমি জুড়ে বিস্তৃত এটি। এখানে ১৫০টি রিটেইল স্টোর এবং ৫০টি জায়গা রয়েছে যেখানে খাদ্যদ্রব্য ও পানীয় পাওয়া যায়। বিমানবন্দরটি অনেকটা সিটি সেন্টারের মতো।

istanbul airport
ইস্তাম্বুল বিমানবন্দর, তুরস্ক

ইস্তাম্বুল বিমানবন্দর, তুরস্ক

তুরস্কের ইস্তাম্বুল শহরের ইউরোপীয় অংশের আরনভুতকয়ে বিমানবন্দরটি অবস্থিত। ২০১৮ সালে এটির নির্মাণ কাজ শুরু হয়। প্রথম ধাপের কাজ শেষ হতে সময় লেগেছে মাত্র সাড়ে তিন বছর। বিমানবন্দরটিতে ৯ হাজার সিসিটিভি ক্যামেরা থাকবে। প্রায় সাড়ে ৩ হাজার সিকিউরিটি অফিসার দায়িত্বে থাকবেন। এছাড়াও থাকবে পাঁচশ এর বেশি চেক-ইন পয়েন্ট, ২২৮ টি পাসপোর্ট কন্ট্রোল পয়েন্ট, ব্যাগেজ পরিবহনের জন্য ৪২ কিলোমিটার লম্বা ব্যাগেজ সিস্টেম, ১৪৩ যাত্রী উঠার ব্রিজ। বিমানবন্দরের ভেতরে ৫ হাজার বর্গ মাইটার এলাকার ওপর তৈরি করা হয়েছে বিশাল পেট্রল স্টেশন। ইস্তাম্বুল বিমানবন্দরের কাজ পুরোপুরি শেষ হলে এটি হবে বিশ্বের সবচেয়ে বড় বিমানবন্দর।

Zurich-Airport
জুরিখ এয়ারপোর্ট, সুইজারল্যান্ড

জুরিখ এয়ারপোর্ট, সুইজারল্যান্ড

জুরিখ এয়ারপোর্ট সুইজারল্যান্ডের সবচেয়ে বড় আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর। জুরিখ শহর থেকে ১২ কিলোমিটার দূরে এট অবস্থিত। এতে ৩টি টার্মিনাল এবং ৩টি রানওয়ে রয়েছে। বিশ্বের প্রায় ৬৭টি দেশের ২০৩টি গন্তব্যে এখান থেকে বিমান ছেড়ে যায়।

কানসাই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর, জাপান

জাপানের ওসাকা স্টেশন থেকে ৩৮ কিলোমিটার দূরে হনশু উপকূলে ওসাকা উপসাগরের মাঝে কৃত্রিম দ্বীপে তৈরি হয়েছে এই বিমানবন্দর। এটি সাগরে নির্মিত বিশ্বের সর্বপ্রথম বিমানবন্দর বলা হয়। বিমানবন্দরটিতে ২টি টার্মিনাল রয়েছে। 

এমএইচটি

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর