ইন্দোনেশিয়ার ঘটনায় সমর্থকদের সতর্ক করলেন ব্যারিস্টার সুমন

স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২ অক্টোবর ২০২২, ০৬:১৭ পিএম
ইন্দোনেশিয়ার ঘটনায় সমর্থকদের সতর্ক করলেন ব্যারিস্টার সুমন

সাম্প্রতিক সময়ে দেশীয় ফুটবলে বেশ সাড়া জাগিয়েছেন ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন। নিজের ফুটবল একাডেমিকে নিয়ে প্রতিনিয়ত বিভিন্ন জেলায় প্রীতি ম্যাচ খেলে থাকেন তিনি। আজ ইন্দোনেশিয়ার পূর্ব জাভায় আরেমা এফসি ও পারসেবায়া সুরাবায়ার মধ্যকার ম্যাচের পর সমর্থকদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে ১৭৪ জন নিহত হয়েছে। বিশ্ব ফুটবলের জন্য বেদানাদায়ক দিনে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে সমর্থকদের সতর্ক বার্তা দিয়েছেন ব্যারিস্টার সুমন।  

ইন্দোনেশিয়ার নির্মম ঘটনা সমর্থকদের যেমন আঘাত দিয়েছে তেমনি ব্যারিস্টার সুমনের মতো সংগঠক ও ফুটবলপ্রেমীকে করেছে মর্মাহত। তিনি প্রতিনিয়ত দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ফুটবল খেলতে গেলে দর্শকদের উপচে পড়া ভীড় লক্ষ্য করা যায়। ইন্দোনেশিয়ার ঘটনায় ফেসবুক পেজে এক ভিডিও বার্তায় বাংলাদেশের ফুটবল সমর্থকদের সতর্ক করেছেন।   

তিনি বলেন, ' আমরা যারা ফুটবল খেলি, ফুটবলকে যারা ভালোবাসি সবার জন্য একটি কলঙ্কের দিন হচ্ছে আজকে। আমি প্রথমেই যারা নিহত হয়েছেন তাদের আত্নার মাগফেরাত কামনা করছি। এবং একজন ফুটবল সংগঠক ও ফুটবলার হিসেবে আমি বলতে চায় ইন্দোনেশিয়া এ ঘটনা থেকে আমাদের অনেক কিছু শিক্ষা নেওয়ার আছে।' 

আরও পড়ুন: দেশে ফিরছেন লামিছানে, করবেন আইনি লড়াই

বাংলাদেশের বিভিন্ন প্রান্তে ব্যারিস্টার সুমন তার একাডেমি নিয়ে খেলতে যাওয়ার সময় দর্শকদের উপচে পড়া ভীড় লক্ষ্য করা যায়। ইন্দোনেশিয়ার ঘটনাকে উদাহরণ হিসেবে এনে তিনি বলেন, 'আমরা প্রতি সপ্তাহ বিভিন্ন জায়গায় খেলতে যায়। মহান রব্বুল আলামিনের কৃপায় এখন পর্যন্ত কোন ধরনের সমস্যা হয় নি। আমি যারা ফুটবলকে ভালোবাসেন তাদেরকে বলবো দেখেন এমন ঘটনা ফুটবলকে পেছায় দেয়। ইন্দোনেশিয়ার ফুটবলও পিছিয়ে পড়েছে এ ঘটনায়। ফুটবল হয় তো ফিরবে কিন্তু এ কলঙ্ক কিন্তু কখনোই মুছতে পারবে না।' 

আরও পড়ুন: আর্জেন্টিনার ফর্ম পিএসজিতেও সঙ্গী মেসির, এমবাপেও পেলেন গোল

ব্যারিস্টার সুমন একাডেমির ফুটবল খেলা দেখতে আসা সমর্থকদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, 'আমাদের খেলা যারা দেখতে আসেন তাদের বল কোনভাবে বেশি আবেশপ্রবণ হওয়া যাবে না। আবেগ যদি নিয়ন্ত্রণ করতে না পারেন তাহলে সুবিধার চেয়ে অসুবিধায় বেশি হয়। কারণ এ ঘটনাটা ঘটে গেল ১৭৪ টি তাজা প্রাণ ঝরে গেল। এটা আসলেই খুবই দুঃখজনক ঘটনা। আজকে আমাদের একাডেমির সকল ফুটবলারদের এ ঘটনাটি প্রভাব ফেলেছে, কারণ আমাদের একাডেমির ম্যাচগুলাতে হাজার হাজার মানুষ আসেন খেলা দেখতে। আমাদের ইচ্ছাটা হল মাদক থেকে মানুষকে দূরে নিয়ে আসা, মাঠে নিয়ে আসা, মানুষকে সুস্থ বিনোদন দেওয়া। আমাদের জন্য দোয়া করবেন আমারা যেন মানুষের জন্য ও ফুটবলের জন্য কাজ করতে পারি।' 

পরিশেষে সুমন সমর্থকদের বলেন, বাংলাদেশের মানুষদের প্রতি আমার একটাই আহ্বান আবেগ থাকা ভালো কিন্তু বেশি আবেগ দেখাবেন না যার জন্য ফুটবলটা যেন নষ্ট না হয়। 

এমএএম