মঙ্গলবার, ২৮ মে, ২০২৪, ঢাকা

বিছানায় রক্ত নিয়ে নতুন তথ্য দিলেন পরীমণি

বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪ জানুয়ারি ২০২৩, ০৭:০৭ পিএম

শেয়ার করুন:

বিছানায় রক্ত নিয়ে নতুন তথ্য দিলেন পরীমণি

গত বছরের শেষ প্রান্তে এসে রাজের সঙ্গে বিচ্ছেদের আভাস দেন পরীমণি। সামাজিক মাধ্যমে কয়েক দফা পোস্টের পর রক্তমাখা বালিশ- চাদরের ছবি দেন তিনি। তা দেখে অনেকেই ভেবেছিলেন, রাজ মেরে রক্তাক্ত করেছেন পরীকে। কিন্তু রাজ যে বাড়ি থাকেন তার ম্যানেজার সংবাদমাধ্যমে জানান, ওই রক্ত রাজের ছিল, পরীমণির না। এদিকে বিছানায় রক্ত নিয়ে নতুন তথ্য দিলেন পরীমণি। তিনি জানালেন, সেদিন রাজের পরিবারের সদস্যরা ছাড়া আর কেউ বাসায় ছিল না।

পরীমণি এ প্রসঙ্গে সংবাদমাধ্যমকে বলেন, ‘আমার বাসায় কোনো কাজের লোকই তো ছিল না সেদিন, রাজের পরিবারের লোকজন ছাড়া। আমার যারা স্টাফ তাদের আমার শাশুড়ি ছুটিতে পাঠিয়ে দিয়েছিল আগেই।’


বিজ্ঞাপন


সেদিনের ওই রক্ত পরীমণির না উল্লেখ করে এর আগে একটি সংবাদমাধ্যমকে রাজের বাসার ম্যানেজার বলেছিলেন, ‘অ্যাকুয়ারিয়াম রাখতে গিয়ে রক্তারক্তি হয়েছে। রাজ নিজেই অ্যাকুয়ারিয়াম সরাচ্ছিলেন। সেটি পড়ে ভেঙে রাজের হাত কেটে গেছে। ওই সময় রাজ্যও তো পাশে ছিল। এর বাইরে আমি কিছু বলতে পারব না।’ তারই পরিপ্রেক্ষিতে নতুন এ তথ্য দিলেন নায়িকা।

porimoni

রাজ-পরীর সংসার বিষয়ক জটিলতা প্রকাশ্যে আসে ২০২২ সালে শেষ দিন। তবে তা ছিল পরীর দিক থেকে। শুক্রবার (৩০ ডিসেম্বর) দিবাগত রাতে পরীমণি ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়েছিলেন, ‘হ্যাপি থার্টি ফার্স্ট এভরিওয়ান! আমি আজ রাজকে আমার জীবন থেকে ছুটি দিয়ে দিলাম এবং নিজেকেও মুক্ত করলাম একটা অসুস্থ সম্পর্ক থেকে।’

তারপর শনিবার রাতে পরীমণি জানান, অভিমান ভুলে রাজের কাছে ফিরে গিয়েছেন। কিন্তু এর কয়েকঘণ্টা পর মধ্যরাতে ফেসবুকে রক্তাক্ত বিছানা ও কোলবালিশের ছবি প্রকাশ করেন তিনি। ক্যাপশনে লেখেন, ‘হ্যাপি নিউ ইয়ার। আগামীকাল সংবাদ সম্মেলন, লোডিং…।’


বিজ্ঞাপন


গত বছরের ১৭ অক্টোবর গোপনে একে অপরকে জীবনসঙ্গী হিসেবে বিয়ে করেন পরীমণি ও রাজ। তবে খবরটি প্রকাশ্যে এনেছেন এ বছরের ১০ জানুয়ারি। একই দিন আরও ঘোষণা করেন, সন্তান আসছে তাদের ঘরে। এরপর ২২ জানুয়ারি পারিবারিক আয়োজনে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতাও করেন তারা। চলতি বছরের ১০ আগস্ট পরীমণির কোলজুড়ে আসে রাজ্য।

আরআর

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর