মারধরের পর ছাত্রলীগের নেত্রীকে হলছাড়া করে ফের বিতর্কে রিভা

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০২:২৫ এএম
মারধরের পর ছাত্রলীগের নেত্রীকে হলছাড়া করে ফের বিতর্কে রিভা

রাজনৈতিক অনুষ্ঠানের না যাওয়াকে কেন্দ্র করে গত ১৯ আগস্ট ইডেন মহিলা কলেজের দুই শিক্ষার্থীর উপর চড়াও হন প্রতিষ্ঠানটির ছাত্রলীগের সভাপতি তামান্না জেসমিন রিভা। এ নিয়ে ওই শিক্ষার্থীদের অকথ্য ভাষায় গালাগালও করেন তিনি। যার একটি অডিও প্রকাশিত হয়। সেই অডিও ফাঁসের ঘটনায় ফের রিভার জেরার মুখে পড়তে হয় দুই শিক্ষার্থীকে। রিভার তোপের মুখে শেষমেষ ২৪ আগস্ট হল ছাড়তে হয় দুই শিক্ষার্থীকে।

ঘটনার এক মাস পর এবার একই কমিটির ছাত্রলীগ নেত্রীকে মেরে হল থেকে বের করার অভিযোগ উঠেছে তামান্না জেসমিন রিভা। সঙ্গে ছিলেন কমিটির সাধারণ সম্পাদক সুলতানা রাজিয়া ও তাদের অনুসারীরা।

আরও পড়ুন: ইডেন কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতির অডিও নিয়ে তোলপাড়

ভুক্তভোগী ওই ছাত্রী ইডেন মহিলা কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি৷ তার নাম জান্নাতুল ফেরদৌস। জান্নাতুলের অভিযোগ, শনিবার রাত ১১টা নাগাদ তার উপর চড়াও হন ইডেন ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক। তারা দুইজনসহ তাদের অনুসারী রোকসানা, মীম, মিতু, জ্যোতিসহ আরও বেশ কয়েকজন জান্নাতুলকে মারধর করে।

dhakaইডেন মহিলা কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি সোনালী আক্তার জানান, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটির হলের চারটি কক্ষ নিয়ে এ ঘটনার সূত্রপাত।

জানা গেছে, জান্নাতুল হলের চারটি কক্ষকে হল কর্তৃপক্ষের থেকে নিয়ে নিজের রাজনৈতিক কক্ষ হিসেবে গড়ে তোলেন। যেখানে নিজের ক্ষমতা প্রতিষ্ঠা করতে চেয়েছিলেন রিভা। তা না পেরে জান্নাতুলের ওপর হামলা করা হয়।

আরও পড়ুন: এবার দুই ছাত্রীকে বিবস্ত্র করে ভিডিও ভাইরালের হুমকি দিলেন রিভা

সম্প্রতি ইডেন মহিলা কলেজের হলের সিট বাণিজ্য নিয়ে গণমাধ্যমে কথা বলেছিলেন জান্নাতুল ফেরদৌস। হামলার পেছনে এটি একটি কারণ বলে মনে করেন ইডেন ছাত্রলীগের অনেক নেতাকর্মী।

edenগত ১৩ মে রিভাকে সভাপতি ও সুলতানা রাজিয়াকে সাধারণ সম্পাদক করে তিন বছর পর ইডেন ছাত্রলীগের কমিটি ঘোষণা করে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ৷ এর পরদিন বিক্ষোভ করেন ইডেন ছাত্রলীগের একাংশ। এরপর একের পর এক বিতর্কের জন্ম দিয়ে যাচ্ছেন ছাত্রলীগ সভাপতি রিভা।

আরও পড়ুন: ইডেন ছাত্রলীগ নিয়ে কেন এত আলোচনা?

সাধারণ শিক্ষার্থীদের ওপর নিজের প্রভাব প্রতিষ্ঠার পাশাপাশি ছাত্রলীগের নেত্রীদের ওপরও চড়াও হচ্ছেন তিনি। সাধারণ শিক্ষার্থীদের মারধর, হলে নিজের আধিপত্য বিস্তার, আবাসিক হলের সিট বাণিজ্যসহ অসংখ্য অভিযোগ তার বিরুদ্ধে।

কারই/এমআর