সরকার পতন, ৫৪ দল, ১০ দফা, তত্ত্বাবধায়ক সবই ভুয়া: কাদের

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ২৫ জানুয়ারি ২০২৩, ০১:৪৭ পিএম
সরকার পতন, ৫৪ দল, ১০ দফা, তত্ত্বাবধায়ক সবই ভুয়া: কাদের

বিএনপির সরকার পতনের আন্দোলন, ৫৪ দল, ১০ দফা, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবি সবই ভুয়া বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বুধবার (২৫ জানুয়ারি) রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে ঐতিহাসিক গণঅভ্যুত্থান দিবস উপলক্ষে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমন মন্তব্য করেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, 'মির্জা ফখরুল লাল কার্ড দেখাতে গিয়ে শুন্য হাতে ফিরল। সরকার পতন, ৫৪ দল, ১০ দফা, তত্ত্বাবধায়ক সরকার সবই ভুয়া। বিএনপির হাঁকডাক, লোটাকম্বল, মশার কয়েল, সাতদিন আগ থেকে সমাবেশের প্রস্তুতি সবই ব্যর্থ।'

বিএনপিকে উদ্দেশ্য করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, 'বিএনপি সোহরাওয়ার্দীতে আন্দোলন না করে গরুর হাটের আন্দোলন করেছে। বিএনপির আন্দোলন থেকে জোয়ার থেকে ভাটার দিকে যাচ্ছে। ভুয়া জোটের মাধ্যমে গঠন করা বিএনপি ভুয়া। তাদের জনগণ বিশ্বাস করে না।'

ওবায়দুল কাদের বলেন, 'বিএনপি বাকশাল নিয়ে কথা বলে। এটা জাতীয় দল। এদলে বঙ্গবন্ধুর কাছে জিয়া দরখাস্ত করে সদস্য হয়েছিল।'

গণঅভ্যুত্থান দিবস উপলক্ষে সেতুমন্ত্রী বলেন, 'স্বাধীনতা হঠাৎ করে আশার কোনো গল্প নয়। স্বাধীনতা লাখো শহীদের রক্ত, মা-বোনের সম্ভ্রম, বিনিময়ে আসা এক সংগ্রামের নাম। স্বাধীনতা একদিনে আসেনি হাজার বছরের আন্দোলন সংগ্রাম আর লড়াইয়ের মাধ্যমে এসেছে। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ২৩ বছর সংগ্রাম করে এদেশের স্বাধীনতা এসেছে।'

সেতুমন্ত্রী বলেন, 'কৃষক, শ্রমিক আন্দোলন করেছিল তাদেরকে আপনারা গুলি করে হত্যা করেছিলেন। কৃষক শ্রমিককে বিএনপির পছন্দ নয়। দেশের উন্নয়নের জ্বালায় জ্বলছে বিএনপি।'

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, 'বিএনপি এখন পথহারা পথিকের মতো দিশেহারা। মাত্র সূচনা করেছি আমরা, খেলা এখনো শুরু করিনি আমরা।'

বিএনপির আন্দোলনের নেতা কর্মী ছাড়া কোনো জনগণ নেই বলেও মন্তব্য করেন সেতুমন্ত্রী কাদের।

এ সময় ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগকে দ্রুত কমিটি দেওয়ার নির্দেশ দেন তিনি।

সমাবেশে অন্যদের মধ্যে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম, মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমেদ মান্নাফি, সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবিরসহ কেন্দ্রীয় ও মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

কারই/এমআর