বিভিন্ন রাশির মানুষের খারাপ দিকগুলো জানুন

লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ২২ মে ২০২২, ০৯:১৬ এএম
বিভিন্ন রাশির মানুষের খারাপ দিকগুলো জানুন

রাশির মাধ্যমে যেকোনো ব্যক্তির চরিত্রের ভালো ও খারাপ দিক জানা সম্ভব। মনোবিজ্ঞানের মতে, কোনো ব্যক্তি সম্পূর্ণ ভালো বা খারাপ হয় না। তার চরিত্রের যেমন কিছু ভালো দিক থাকে। তেমনি থাকে খারাপ দিকও। ভালো দিকগুলো প্রকাশ করলেও সবাই খারাপ দিকগুলো লুকিয়ে রাখতে চান। 

অনেকসময় চেনা মানুষকেও আমাদের অচেনা লাগে। কারণ তার লুকোনো খারাপ দিক সামনে চলে আসে। কোন রাশির খারাপ দিক কী কী, জানুন। 

মেষ রাশি

সাধারণত এই রাশির জাতকরা খুব ভালো হন। তবে মাঝেমধ্যে মনে মনে এরা কাউকে খুন করার কথা ভাবেন। তাই বলে সত্যি খুন করেন, এমন নয়। কিন্তু কীভাবে খুন করা যেতে পারে, খুন করলে কী কী সুবিধা মিলবে- এমন চিন্তা করেন। মেষ রাশির জাতকদের অহংকার খুব বেশি। অনেকসময় প্রতিদ্বন্দ্বীকে খুন করার কথা ভাবেন তারা। 

বৃষ রাশি

দুঃখ করার স্বভাব রয়েছে বৃষ রাশির জাতকদের। এরা সব বিষয়েই হাহাকার করতে পারেন। সাধারণত এই রাশির জাতকরা অত্যন্ত পরিশ্রমী হন। তবে কখনো কাজ করতে ইচ্ছা না করলে শরীর খারাপের মতো মিথ্যা বাহানা খোঁজেন। করতে ইচ্ছুক নয় এমন কাজ থেকে পরিত্রাণ পেতে এরা মিথ্যার আশ্রয় নেন। চরিত্রের এই খারাপ দিকটি কাউকে জানাতে চান বৃষ। 

horoscopeমিথুন রাশি

মিথুন অস্থির স্বভাবের হয়ে থাকেন। এদের মনের হাওয়া বদল হয় ক্ষণে ক্ষণে। এই রাশির জাতকদের মেজাজ কখন কেমন থাকে তা বোঝা মুশকিল। খুব সামান্য ঘটনা বা কথাতেও মিথুনের মাথা গরম হয়ে যেতে পারে। আর রেগে গেলে এরা কী করে তা নিজেও জানে না। ছোটোখাটো বিষয়কে কেন্দ্র করে এরা অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ মানুষের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে পারেন। মিথ্যা বলার স্বভাব রয়েছে মিথুনের।

কর্কট রাশি

বেশ আবেগপ্রবণ হয়ে থাকেন কর্কট। এই আবেগই তাদের গুণ, আবার দোষ। আশেপাশের মানুষ বুঝতেও পারেন না এরা কখন কোন বিষয়ে ওভার রিয়্যাক্ট করবে। কর্কট রাশির জাতকরা খুব ঈর্ষাকাতর হয়ে থাকেন। কিন্তু এই দিকটি তারা কারো কাছে প্রকাশ করেন না। 

horoscopeসিংহ রাশি

সব বিষয়ে সবার শীর্ষে থাকতে চান সিংহ রাশির জাতকরা। আর তার জন্য অন্যের ক্ষতি করতে দ্বিধা করেন না তারা। এমনকি ঘনিষ্ঠজনকে বঞ্চনা করেও নিজের লক্ষ্যে পৌঁছাতে প্রস্তুত থাকেন সিংহ। নিজের মনের গভীরে এরা নিজেকে নিয়ে সন্তুষ্ট নন। তবে নিজের গর্ব আর অহংকার বজায় রাখতে তা অন্যদের থেকে আড়াল রাখেন এই রাশির জাতকরা। 

কন্যা রাশি

কন্যা রাশির জাতকরা কোনো কারণে অখুশি হলে, আশেপাশের সবাইকেও অখুশি করিয়ে ছাড়েন। নিজের নেগেটিভিটি অন্যের মধ্যে ছড়িয়ে দেওয়া পর্যন্ত এদের শান্তি হয় না। খুব সহজেই রেগে যান কন্যা রাশির জাতক। দীর্ঘদিন তা মনে পুষেও রাখেন। কারো সঙ্গে ঝগড়া হলে তাকে খুব খারাপভাবে অপমান করতে দ্বিধা করেন না কন্যা। 

horoscopeতুলা রাশি

অত্যন্ত স্বার্থপর হন তুলা রাশির জাতকরা। এদের কাছে নিজের ভাবনা, চাওয়াই বেশি গুরুত্বপূর্ণ। কোনো বিষয়ে তার ওপর কী প্রভাব ফেলবে তা নিয়েই চিন্তিত থাকেন তিনি। অন্যের ভালো বা খারাপ লাগা নিয়ে বিন্দুমাত্র মাথাব্যথা থাকে না তাদের। নিজেকে সবসময় দুঃখী আর বঞ্চিত হিসেবে অন্যের কাছে তুলে ধরেন তুলা। সবার কাছ থেকে সিমপ্যাথি আদায়ে এই রাশির জাতকরা দক্ষ। 

বৃশ্চিক রাশি

শয়তানি বুদ্ধিতে পরিপূর্ণ হন এই রাশির জাতকরা। কেবল মজা করতে এরা অন্যের পেছনে লাগতে ভালোবাসে। মানুষকে বিপদে ফেলে আনন্দ পান বৃশ্চিক। খারাপ কিছু করার আগে দুই বার ভাবেনও না। নিজের শয়তানি বুদ্ধির জালে অন্যকে ফাঁসাতে পছন্দ করেন বৃশ্চিক রাশির জাতকরা।

horoscopeধনু রাশি

ধনু রাশির জাতকদের নিষ্ঠুরতা, নৃশংসতার কোনো সীমা পরিসীমা নেই। ঘনিষ্ঠজনকে বিনা কারণে আঘাত দিয়ে আনন্দ পান এরা। তাই জীবনের বড় সময় ধনু রাশির জাতকরা একা থাকেন। এদের বিশ্বাস করে অনেকেই ঠকেন। 

মকর রাশি

এই রাশির জাতকরা মনে করেন, তাদের দুঃখ সবচেয়ে বেশি। অন্যের কাছে নিজের দুঃখের গল্প বলতে ভালোবাসেন এরা। মকর রাশির জাতকরা এমন ভাব করেন যে এদের থেকে বেশি অবিচারের শিকার আর কেউ হয়নি। কারোর সঙ্গে কথা বলতে গেলেই ঘুরিয়ে ফিরিয়ে নিজের দুঃখ কষ্টের গল্প তুলে আনেন মকর। 

horoscopeকুম্ভ রাশি

কেবল নিজেদের নিয়ে ভাবতে ভালোবাসেন কুম্ভ। অন্যের কথা ভাবার সময় এদের নেই। যেকোনো বিষয়ে নিজের ব্যক্তিগত লাভ খোঁজেন এই রাশির জাতকরা। এমনকি অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ কেউ বিপদে পড়লে কুম্ভ রাশির জাতকরা খোঁজ করেন যে সেই পরিস্থিতিতে এরা কী লাভ করতে পারেন।

মীন রাশি

অন্যের সামনে লাজুক আর সরল সাজার অভিনয় করেন মীন। বাস্তবে এরা যথেষ্ট আক্রমণাত্মক হন। এদের মাথায় শয়তানি বুদ্ধি থাকে অনেক। কারো কাছে ঋণী থাকলে কেবল তাকেই সাহায্য করেন মীন। কারোর জন্য কিছু করার আগে নিজেদের স্বার্থের কথা ভাবেন এরা।