বেতনবৃদ্ধির দাবিতে নিউইয়র্ক টাইমসে কর্মবিরতি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১২:০২ পিএম
বেতনবৃদ্ধির দাবিতে নিউইয়র্ক টাইমসে কর্মবিরতি

মার্কিন সংবাদমাধ্যম নিউইয়র্ক টাইমসের এক হাজারের বেশি কর্মী বৃহস্পতিবার কোনো কাজ করেননি। ২৪ ঘণ্টা কর্মবিরতি পালন করেছেন তারা।

বেতনবৃদ্ধির দাবিতে তাদের এই সিদ্ধান্ত। গত ৪০ বছরের বেশি সময়ের মধ্যে এই প্রথমবার কাজ বন্ধ করে তাদের ক্ষোভ জানালেন নিউইয়র্ক টাইমসের কর্মীরা। নিউজগিল্ড লেবার ইউনিয়ন জানিয়েছে, কর্মীদের নতুন চুক্তির জন্য ৮ ডিসেম্বরের চরমসীমা দেয়া হয়েছিল। তা পূরণ হয়নি। তাই তারা এই পদক্ষেপ নিয়েছেন।

ইউনিয়নের সদস্য সাংবাদিক ও অসাংবাদিক কর্মীরা জানিয়েছেন, গত মার্চে তাদের পুরনো চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়েছে। তারপর থেকে আলোচনা চলছে। তারা এখন এই আলোচনায় ক্লান্ত বোধ করছেন।

গত সপ্তাহে ইউনিয়ন জানিয়েছিল, ২০ মাস ধরে তাদের সঙ্গে কর্তৃপক্ষের আলোচনা চলছে। তারা মনে করছেন, যথেষ্ঠ হয়েছে। তাই এক হাজারের বেশি কর্মী ২৪ ঘণ্টার কর্মবিরতিতে যোগ দেন।

বৃহস্পতিবার নিউজগিল্ড টুইট করে বলেছে, ''কর্মীরা আনুষ্ঠানিকভাবে কাজ বন্ধ রেখেছেন। চার দশকের মধ্যে প্রথমবার। এটা একেবারেই সহজ সিদ্ধান্ত ছিল না। কিন্তু আমাদের সদস্যরা এই সিদ্ধান্ত নিতে চাইছিলেন। ভবিষ্যতে ভালো নিউজরুমের জন্য এটা দরকার ছিল।'

গত মঙ্গল ও বুধবার দুই পক্ষের মধ্যে আলোচনা হয়েছে। বেতন, বাড়ি থেকে কাজ, কর্মীদের মূল্যায়ন পদ্ধতি নিয়ে কথা হয়েছে। ইউনিয়নের দাবি, তাদের মনে হচ্ছে, কর্তৃপক্ষের মানসিকতা ঠিক নয়।

বুধবার ইউনিয়ন জানিয়েছিল, কর্তৃপক্ষ আলোচনার টেবিল থেকে উঠে চলে যাওয়ার পরেই কর্মবিরতির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

নিউইয়র্ক টাইমসের মুখপাত্র ড্যানিয়েল রোডস বলেছেন, 'আলোচনা এখনো চলছে। কোম্পানিকে বলা হয়েছে, কর্মীরা ধর্মঘট করছেন। কিন্তু কোনো অচলাবস্থা তৈরি হয়নি।'

সূত্র: ডয়চে ভেলে

একে