করমুক্ত সোনা কিনতে পারবেন ভুটানগামী পর্যটকরা

প্রকাশিত: ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৮:৪২ এএম

শেয়ার করুন:

করোনাকাল থেকেই ভুটানে পর্যটকদের আনাগোনা কমছে। মহামারি বিস্তাররোধে দেশটিতে বিভিন্ন বিধি-নিষেধ জারি করা হয়েছিল। ফলে বিদেশি পর্যটকদের সংখ্যা শূন্যের কোঠায় এসে নেমেছিল। এছাড়াও ভ্রমণপিপাসুদের বাড়তি বোঝা ছিল ভ্রমণ কর। যা প্রভাব ফেলে ভুটানের অর্থনীতিতে। দেশটির অর্থনীতি এখন বেশ দুর্বল। এমন পরিস্থিতিতে নিজেদের পুরনো জায়গা ফিরে পেতে মরিয়া ভুটান।

পর্যটকদের আকর্ষণ করতে ভুটান সরকার নতুন উদ্যোগ নিয়েছে। এই উদ্যোগের ফলে সবথেকে বেশি উপকৃত হবেন ভারতীয় পর্যটকরা । এবার থেকে করমুক্ত সোনা কিনতে পারবেন ভুটানগামী পর্যটকরা। যে সকল পর্যটকেরা ডেভেলপমেন্ট ফি দিয়ে ভুটানে ঢুকবেন তারা কিনতে পারবেনে সেই সোনা। এই সোনা কেনা যাবে ফুন্টশোলিং এবং থিম্পু থেকে।

ভুটানে সাধারণত ভারতীয় পর্যটকরাই বেশি যান। ভুটানের একটি সংবাদপত্রের খবর অনুযায়ী, গত ২১ ফেব্রুয়ারি এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

যে সকল পর্যটকেরা সাসটেনেবল ফি দিয়ে ভুটানে প্রবেশ করবেন তারা সোনা কিনতে পারবেন। এরই সঙ্গে তাদেরকে পর্যটন বিভাগ দ্বারা অথোরাইজড হোটেলে এক রাত কাটাতে হবে। তাহলেই তারা করমুক্ত সোনা কিনতে পারবেন।

ডিউটি ফ্রি শপ থেকেই এই সোনা কেনা যাবে। ভুটানের পর্যটনশিল্পের প্রসারণ ঘটাতে এই আউটলেটগুলো সোনা বিক্রি করবে। 

২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ এর মূল্য অনুসারে, ভারতে প্রতি ১০ গ্রাম ২৪ ক্যারেট সোনার দাম ৫৮ হাজার ৩৯০ রুপি। যদিও ভুটানে একইমাত্রায় সোনা কিনলে ৪০ হাজার ২৮৬ নাগলট্রাম বা ভুটানি মুদ্রা পড়বে কারণ ১ ভারতীয় রুপি এবং ১ ভুটানি মুদ্রায় মূল্য মোটামুটি প্রায় সমান।

এজেড