‘বিউটি সার্কাস’ মুক্তি পাচ্ছে ১৯ হলে

বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৩:১১ পিএম
‘বিউটি সার্কাস’ মুক্তি পাচ্ছে ১৯ হলে

একসময় গ্রাম-বাংলার মানুষের বিনোদনের একটি উল্লেখযোগ্য অংশ ছিল সার্কাস। তবে কালের বিবর্তনে তা জৌলুস হারিয়ে আজ সোনালী অতীতে পরিণত হয়েছে। ঐতিহ্যবাহী এই সার্কাস পার্টি নিয়েই নির্মিত হয়েছে ‘বিউটি সার্কাস’ সিনেমাটি। আগামীকাল ২৩ সেপ্টেম্বর ১৯ টি সিনেমা হলে মুক্তি পেতে যাচ্ছে এই ছবি।

পরিবেশক একশন কাট সূত্রে জানা যায়, আগামীকাল শুক্রবার থেকে রাজধানীর স্টার সিনেপ্লেক্স- বসুন্ধরা সিটি, স্টার সিনেপ্লেক্স- এস.কে.এস টাওয়ার, মহাখালী, স্টার সিনেপ্লেক্স - বিজয় স্মরণী, স্টার সিনেপ্লেক্স- সনি স্কয়ার, মিরপুর, ব্লকবাস্টার সিনেমাস -যমুনা ফিউচার পার্ক, লায়ন সিনেমাস - কদমতলী (কেরানীগঞ্জ), গ্রান্ড সিলেট সিনেপ্লেক্স - সিলেট, সিলভার স্ক্রিন, চট্টগ্রাম, মম ইন, বগুড়া, পূরবী, ময়মনসিংহ, বিজিবি, সিলেট, তাজ সিনেমা, নওগাঁ, সংগীত সিনেমা, খুলনা, মর্ডান সিনেমা, দিনাজপুর, পান্না সিনেমা, মুক্তারপুর, রাজ সিনেমা, কুলিয়ারচর, মাধবী সিনেমা,  মধুপুর, আনন্দ সিনেপ্লেক্স, গুরু দাসপুর, রাজিয়া সিনেমা, নাগরপুর এ চলচ্চিত্রটি মুক্তি পেতে যাচ্ছে।

বাংলাদেশ সরকারের অনুদানপ্রাপ্ত ইমপ্রেস টেলিফিল্ম প্রযোজিত বসুন্ধরা ‘বিউটি সার্কাস’ পাঁচ বছরের নির্মাণযাত্রা শেষে আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর সিনেমা হলে মুক্তি পেতে যাচ্ছে চলচ্চিত্রটি। চলচ্চিত্রটির পাওয়ার্ড বাই স্পন্সর দারাজ। কো পাওয়ার্ড বাই স্পন্সর মিস্টার হোয়াইট ডিটারজেন্ট।

ছোটপর্দায় নাটক বানিয়ে হাত পাকিয়ে বড়পর্দায় নির্মাতা হিসেবে অভিষেক ঘটতে যাচ্ছে মাহমুদ দিদারের। তিনি বলেন, “ভরপুর বিনোদন ও প্রতিশোধের গল্প এটি। সার্কাসকে কেন্দ্র করে এক সাহসী নারীর লড়াই। আমরা মনে করি চলচ্চিত্রটি পরিবারের সবাইকে নিয়ে উপভোগ করার মতো একটি ছবি। এক মুহূর্তও পর্দা থেকে চোখ ফেরাতে পারবেন না দর্শক।”

চলচ্চিত্রটিতে অভিনয় করেছেন দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান, ফেরদৌস আহমেদ, তৌকির আহমেদ, এবিএম সুমন, গাজী রাকায়েত, হুমায়ুন সাধু প্রমুখ।

প্রায় দুই শতাধিক নির্মাণসঙ্গী নিয়ে দুই হাজার গ্রামবাসীর উপস্থিতিতে নওগাঁর সাপাহার গ্রামে চিত্রায়িত হয় সিনেমাটি। দেশের সার্কাস শিল্প ঘিরে নির্মিত প্রথম চলচ্চিত্র এটি। সার্কাসের দলপতি হয়ে এক অদম্য নারীর টিকে থাকার লড়াই ও প্রতিশোধের গল্প তুলে ধরা হয়েছে এই সিনেমায়।

আরআর