সোমবার, ২২ এপ্রিল, ২০২৪, ঢাকা

ঈদে দুই চ্যানেলে গান শোনাবেন মাহফুজুর রহমান 

বিনোদন প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:০৬ পিএম

শেয়ার করুন:

ঈদে দুই চ্যানেলে গান শোনাবেন মাহফুজুর রহমান 

এটিএন বাংলার চেয়ারম্যান ড. মাহফুজুর রহমানকে কে না চেনেন? দেশজুড়ে তিনি পরিচিত তার অদ্ভুত গায়কীর কারণে। যেদিন থেকে তিনি গান করছেন সেদিন থেকেই ট্রলের শিকার হচ্ছেন। পাশাপাশি সংগীত সংশ্লিষ্টরাও মহাবিরক্ত তার এহেন কাণ্ডে।

এসব অবশ্য গায়ে মাখেন না মাহফুজুর রহমান। যে যাই বলুক, তিনি গান গেয়েই যাচ্ছেন। ভবিষ্যতেও গাইবেন বলে বহুবার জানিয়েছেন। 
প্রতি বছর ঈদ উৎসবে নিজের চ্যানেলে এটিএন বাংলা ও এটিএন নিউজে গান শোনান মাহফুজুর রহমান। ২০১৬ সাল থেকে শুরু করেছেন এই কাজ। সেই ধারাবাহিকতায় এই রোজার ঈদেও গান গাইবেন তিনি। 


বিজ্ঞাপন


এবারের ঈদেও একগুচ্ছ গান শোনাবেন তিনি। এটিএন নিউজে ঈদের দিন রাত ৯টায় এবং দ্বিতীয় দিন একই সময় গান শোনাবেন। দুইদিনের জন্য নির্ধারিত তার সংগীত অনুষ্ঠান দুটির নাম যথাক্রমে দিল মে হো তুম এবং দু চোখে শুধু তুমি। সংগীত পরিচালনা করেছেন মান্নান মোহাম্মদ ও রাজেশ ঘোষ। দিল মে হো তুম অনুষ্ঠানে তার সহশিল্পী হিসেবে থাকবেন ভাবনা, সামিয়া, পুনম নীলিমা। 

অন্যদিকে এটিএন বাংলায়ও ঈদের দিন ও পরের দিন থাকছে মাহফুজুর রহমানের একক সংগীতানুষ্ঠান। চ্যানেলটিতে ঈদের দিন ১০.৩০ মিনিটে প্রচার হবে ‘তুমি শুধু আমারই থেকো’। অনুষ্ঠানে রয়েছে মোট ১০ টি গান। অ্যালবামের গানগুলোতে সুরারোপ করেছেন মান্নান মোহাম্মদ ও রাজেশ ঘোষ। বাংলা গানের পাশাপাশি অনুষ্ঠানে থাকছে জনপ্রিয় কয়েকটি গজল। অ্যালবামে রয়েছে আমায় ভালোবাসো না, তোমার চোখ দুটি, তুমি যে শুধু আমার, যাবে যদি চলে যাও এবং বুকের মাঝে রাখবো শিরোনামের গান। গজলের মধ্যে রয়েছে মেরে মিতুয়া, ম্যায় জিস দিন, জানে কাহা, ম্যায় সায়ের তো নেহি এবং চিটঠি আয়ি হ্যায়।

ঈদের পরদিন রাত ১০.৩০ মিনিটে প্রচার হবে সঙ্গীতানুষ্ঠান ‘লেকে পেহেলা পেহেলা পেয়ার’। একক এবং ডুয়েট হিন্দি গান দিয়ে সাজানো হয়েছে এই অনুষ্ঠানটি। অনুষ্ঠানে থাকছে দিল কিয়া কারে, মেরে মেহেবুব, রাজাকো রাণি সে পেয়ার, লেকে পেহেলা পেহেলা পেয়ার, বারিস মে তু, তুহি এ মুঝকো বাতাদে, ধীরে ধীরে সে, হামকো হামিসে, ম্যায় জিস দিন ভুলাদু এবং মিলে হো তুম হামকো শিরোনামের গান। ডুয়েট গানগুলোতে ড. মাহফুজুর রহমানের সহশিল্পী হিসেবে রয়েছেন সামিয়া জাহান, নীলিমা, ভাবনা আহমেদ ও মারিয়া চৌধুরী।

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর