বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই, ২০২৪, ঢাকা

ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা, মামলার পর যুবক গ্রেপ্তার

জেলা প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ০৭ জুন ২০২৩, ১১:৩১ পিএম

শেয়ার করুন:

ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা, মামলার পর যুবক গ্রেপ্তার
ফাইল ছবি

পটুয়াখালীর গলাচিপা উপজেলায় ধর্ষণের শিকার হয়ে লোকলজ্জার ভয়ে এক স্কুলছাত্রী আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ নিয়ে মামলার পর ধর্ষণে অভিযুক্ত যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

অভিযুক্ত ব্যক্তি দুই সন্তানের বাবা ও স্থানীয় একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের অফিস সহকারী হিসেবে কর্মরত। ভুক্তভোগী ছাত্রীর মা বাদী হয়ে ওই ব্যক্তিকে একমাত্র আসামি করে ধর্ষণ ও আত্মহত্যার প্ররোচণার অভিযোগে থানায় মামলা করেছেন।


বিজ্ঞাপন


মামলার অভিযোগে বলা হয়, ধর্ষণের শিকার ওই ছাত্রী এবার এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। অভিযুক্ত যুবক ওই ছাত্রীকে বিভিন্ন সময় প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যক্ত করত। বিষয়টি নিয়ে পারিবারিকভাবে সালিশ হলেও অভিযুক্ত ব্যক্তি থামেননি। উল্টো ওই ছাত্রীকে দেখে নেওয়ার হুমকি দেন। গত রোববার ওই ছাত্রী তার মায়ের কাছে জানান, দুই দিন আগে বাড়ির পাশে বাগানে একা পেয়ে তাকে ধর্ষণ করেছেন অভিযুক্ত যুবক।

ঘটনা জানাজানি হয়ে গেলে লোকলজ্জা এড়াতে ওই ছাত্রী ওইদিন সন্ধ্যায় ঘরের আড়ার সঙ্গে গলায় রশি পেঁচিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। তাৎক্ষণিক বিষয়টি স্বজনদের নজরে এলে তাকে উদ্ধার করে রাতেই প্রথমে গলাচিপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ ভোরে ওই স্কুলছাত্রীর মৃত্যু হয়।

গলাচিপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শোনিত কুমার গায়েন ঢাকা মেইলকে জানান, স্কুলছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় নিহত স্কুলছাত্রীর মা বাদী হয়ে আজ সন্ধ্যায় থানায় মামলা করেছেন। মামলার পর একমাত্র আসামিকে রাতেই গ্রেফতার করা হয়েছে।

প্রতিনিধি/এমআর

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর