মৌলভীবাজারে জার্সি বিক্রিতে ধুম, শীর্ষে আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল

জেলা প্রতিনিধি
মৌলভীবাজার
প্রকাশিত: ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ০১:০৮ পিএম
মৌলভীবাজারে জার্সি বিক্রিতে ধুম, শীর্ষে আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল

বিশ্বকাপ ফুটবলের দ্বিতীয় রাউন্ডের লড়াই শেষে আজ শুরু হচ্ছে কোয়ার্টার ফাইনালের যুদ্ধ। যার প্রথম ম্যাচে মাঠে নামছে ব্রাজিল ও ক্রোয়েশিয়া এবং দ্বিতীয় ম্যাচে মাঠে নামবে আর্জেন্টিনা ও নেদারল্যান্ডস।

বিশ্বের সঙ্গে এ আনন্দ-উল্লাসের জন্য অধীর আগ্রহে প্রহর গুনছেন বাংলাদেশের আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের সমর্থকরা। এই দুটি ম্যাচ শুরুর ক্ষণ যতই ঘনিয়ে আসছে, ততই দুইদলের সমর্থকরা ভাসছেন উন্মাদনায়। এরই অংশ হিসেবে বাড়ছে এই দুদলের জার্সি বিক্রির হিড়িক। দোকানে দোকানে শোভা ছড়াচ্ছে প্রিয় দলের জার্সিগুলো।

সারাদেশের মতো মৌলভীবাজারেও বিশ্বকাপের আমেজ বইছে। চলছে প্রিয়দলের জার্সির কেনাবেচা। তবে ব্যবসায়ীরা বলছেন, ব্রাজিলের তুলনায় আর্জেন্টিনার জার্সি বেশি বিক্রি হচ্ছে।

শুক্রবার (৯ ডিসেম্বর) শহরের সেন্ট্রাল রোডের ছোট বড় বেশকয়েকটি দোকান ও বিভিন্ন শপিংমল ঘুরে এমন চিত্র দেখা যায়।

ব্যবসায়ী রহমান জানান, তিনি ঢাকা থেকে ২শ পিস জার্সি আনেন বিশ্বকাপ শুরুর আগে। যেখানে একশ ২০ পিস ছিল আর্জেন্টিনার ও বাকি ৮০ পিস ছিল ব্রাজিলের জার্সি। তিনি বলেন, 'ব্রাজিলের প্রায় ৪০ পিস ও আর্জেন্টিনার ১৭ পিস জার্সি এখনও দোকানে আছে। আজকে হয়তো এগুলো বিক্রি হয়ে যাবে।'

আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিল ফুটবল দলের সমর্থক বেশি থাকায় এই দুই দেশের জার্সি দোকানে রাখা হয়। তবে আর্জেন্টিনার জার্সি তুলনামূলক বেশি বিক্রি হয়েছে বলে জানান ব্যবসায়ী সুজাউর রহমান।

আরেক ব্যবসায়ী বিজয় দেবনাথ বলেন, ' ক্রেতাদের চাহিদা থাকায় আজ সকালে স্থানীয় বাজার থেকে ১২ পিস ছোট-বড় আর্জেন্টিনার জার্সি সংগ্রহ করেছি। আমার দোকানে যেগুলো ছিল তা শেষ, তাই একটু দাম দিয়েই জার্সি এনেছি।'

ফুটবল সমর্থক কায়সার আহমদ বলেন, 'পরিচিত দুই দোকানে গিয়ে ফিরে এসেছি। দোকানে শুধু ব্রাজিলের জার্সি আছে। আজ বিকেলে তারা আর্জেন্টিনার জার্সি আনবে, তখন কিনে আনব।'

ছেলে ব্রাজিল মেয়ে আর্জেন্টিনা। দুজনের জন্যই দুদলের জার্সি কেনেন ফয়সল আহমদ। তিনি বলেন, ' যে দোকানে যাই সেখানেই ব্রাজিলের জার্সি দেখতে পাই, কিন্তু কয়েকটি দোকান ঘুরে আর্জেন্টিনা জার্সি কিনতে হলো।'

প্রতিনিধি/এসএস