মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ঢাকা

শয়নকক্ষে মিলল গৃহবধূর গলা কাটা মরদেহ, স্বামী পলাতক

জেলা প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০১:৪২ পিএম

শেয়ার করুন:

শয়নকক্ষে মিলল গৃহবধূর গলা কাটা মরদেহ, স্বামী পলাতক
ছবি: ঢাকা মেইল

কুড়িগ্রাম সদরে শয়নকক্ষ থেকে শাহেরা বেগম (৩৫) নামে এক গৃহবধূর গলা কাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনার পর থেকে শাহেরার স্বামী মোখলেছুর রহমান পলাতক রয়েছেন।

বুধবার (৩০ নভেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলার পলাশবাড়ী পশ্চিমপাড়া গ্রাম থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।


বিজ্ঞাপন


কুড়িগ্রামের পুলিশ সুপার আল আসাদ মো. মাহফুজুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

শাহেরা সদরের বেলগাছা ইউনিয়নের পলাশবাড়ী পশ্চিমপাড়া গ্রামের প্রয়াত আবদুস ছাত্তারের মেয়ে। তার স্বামী মোখলেছুর রহমান পার্শ্ববর্তী কাঁঠালবাড়ি ইউনিয়নের ডোমপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। মোখলেছুর শ্বশুরবাড়িতে থাকতেন। ওই দম্পতির দুই মেয়ে ও এক ছেলে রয়েছে।

গৃহবধূর ছেলে শামীম জানান, তিনি সকালে কাজের জন্য বাইরে বের হন। কাজ শেষে সন্ধ্যায় ফিরে ঘর তালাবদ্ধ দেখতে পান। পরে তালা ভেঙে ঘরে ঢুকে লেপ দিয়ে ঢেকে রাখা অবস্থায় মায়ের গলা কাটা মরদেহ দেখতে পান। পরে তার চিৎকারে প্রতিবেশীরা ছুটে আসেন। পরে তাদের কাছ থেকে খবর পেয়ে মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায় পুলিশ।

শাহেরার মা ফাতেমা বেগম বলেন, ‘দীর্ঘদিন ধরে মেয়ে আর জামাইয়ের মধ্যে পারিবারিক কলহ চলছিল। এরই জেরে শাহেরাকে হত্যা করে আমার জামাই (জামাতা) পালিয়ে গেছে। আমি সারা দিন বাইরে ছিলাম। খবর শুনে এসে মেয়ের গলা কাটা মরদেহ দেখতে পাই। আমি মেয়ে হত্যার বিচার চাই।’


বিজ্ঞাপন


পুলিশ সুপার আল আসাদ মো. মাহফুজুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে নিজেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। ধারণা করা হচ্ছে, পারিবারিক কলহের কারণে এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে।

তদন্ত চলছে। এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

টিবি

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর