প্রেমিকের বাসায় গিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর আত্মহত্যা

জেলা প্রতিনিধি
ঢাকা (সাভার)
প্রকাশিত: ০৬ অক্টোবর ২০২২, ১২:১৯ এএম
প্রেমিকের বাসায় গিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর আত্মহত্যা

প্রেমিক অন্য মেয়েকে বিয়ে করায় সাভারের আশুলিয়ায় একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক সম্মান শ্রেণির এক ছাত্রী প্রেমিকের ভাড়া করা ফ্লাটে গিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় তার প্রেমিক ফিরোজ আলম (৩১) আটক করেছে আশুলিয়া থানা পুলিশ।

বুধবার (৫ অক্টোবর) রাতে ঢাকা মেইলকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাহাঙ্গীর আলম। 

এর আগে বুধবার (৫ অক্টোবর) দুপুরে আশুলিয়ার পূর্ব ডেন্ডাবর এলাকার ইকবাল হোসেনের মালিকানাধীন বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। 

নিহত ওই শিক্ষার্থীর নাম নুসরাত মীম (২৬) তিনি সাভারের গণ বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের স্নাতক (সম্মান) শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিলেন। তার গ্রামের বাড়ি বরিশাল জেলার বাবুগঞ্জ থানার দেহেরগতি এলাকায়। তার বাবার নাম মৃত শাহজাহান তালুকদার। 

ফিরোজ আলম ঢাকার দোহার থানার রাধানগর গ্রামের মো. ওমর আলীর ছেলে। তিনি পেশায় একজন চিকিৎসক৷ আশুলিয়ার একটি পোশাক কারখানায় মেডিকেল অফিসার হিসেবে কাজ করেন। 

আশুলিয়া থানা পুলিশ জানায়, নিহত মীমকে না জানিয়ে তার প্রেমিক ফিরোজ ছয় মাস আগে অন্য একটি মেয়েকে বিয়ে করেন এবং আশুলিয়ার পূর্ব ডেন্ডাবর এলাকার স্থানীয় ইকবাল হোসেনের মালিকানাধীন বাড়ির ষষ্ঠ তলার একটি ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করেন। মাঝেমধ্যে সেখানে তার স্ত্রীও আসতেন। সম্প্রতি বিষয়টি জানতে পারেন মীম। 

পরে আজ বুধবার (৫ অক্টোবর) দুপুরে সেই ফ্ল্যাটে গিয়ে উপস্থিত হন তিনি। সেখানে দুজনের মধ্যে কথা-কাটাকাটি শুরু হলে বাগবিতণ্ডার এক পর্যায়ে ফিরোজ তাকে কক্ষে রেখে বারান্দায় গিয়ে মোবাইলে কথা বলতে যান। এসময় নুসরাত বারান্দার দরজা আটকে নিজের ওড়না দিয়ে ফ্যানের সাথে ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন। বিষয়টি জানলা দিয়ে দেখতে পেয়ে ফিরোজ চিৎকার করতে থাকেন। পরে স্থানীয়রা বিষয়টি আশুলিয়া থানা পুলিশকে অবহিত করেন। পুলিশ এসে দরজা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে ঝুলন্ত অবস্থায় ওই ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার করে। 

আশুলিয়া থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) জাহাঙ্গীর আলম ঢাকা মেইলকে বলেন, বিষয়টি জানতে পেরে ঘটনাস্থল থেকে ওই শিক্ষার্থীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় একজনকে আটক করা হয়েছে। নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহতের পরিবারের সদস্যদের খবর দেয়া হয়েছে। এ ব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

প্রতিনিধি/একেবি