বাগেরহাটে মোটরসাইকেল চালককে কুপিয়ে হত্যা

জেলা প্রতিনিধি
বাগেরহাট
প্রকাশিত: ০৪ জুলাই ২০২২, ০৬:৩৪ পিএম
বাগেরহাটে মোটরসাইকেল চালককে কুপিয়ে হত্যা

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে জাহাঙ্গীর হাওলাদার (৪০) নামের এক মোটরসাইকেল চালককে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ফরিদ নামের একজনের বিরুদ্ধে। 

সোমবার (৪ জুলাই) বেলা ২টার দিকে মোরেলগঞ্জ উপজেলা সদরের প্রাণিসম্পদ অফিসের সামনে এই হামলার ঘটনা ঘটে। এসময় হামলাকারীদের আঘাতে নিহত জাহাঙ্গীরের কলেজ পড়ুয়া ছেলে আজিজুর রহমান সাকিবও (১৮) গুরুতর আহত হন। আহত অবস্থায় বাবা-ছেলেকে উদ্ধার করে মোরেলগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক জাহাঙ্গীরকে মৃত ঘোষণা করেন। অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় আজিজুর রহমান সাকিবকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

জাহাঙ্গীর হাওলাদার বারইখালী-নিকারিপাড়া এলাকার মৃত রশিদ হাওলাদারের ছেলে। তার ছেলে সাকিব সরকারি সিরাজ উদ্দিন মেমোরিয়াল কলেজে দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী।

নিহতের স্ত্রী ফাতেমা বেগম বলেন, সম্প্রতি মোটরসাইকেল চালক ফরিদের সাথে মোটরসাইকেল চালানোর সিরিয়াল নিয়ে আমার স্বামী জাহাঙ্গীরের সঙ্গে বাক বিতণ্ডা হয়। সেই জেরেই দুপুরে ফরিদ আমার স্বামী ও ছেলেকে ধারাল অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে গুরুতর জখম করে। ফরিদের কোপে আমার স্বামী মারা গেছে। স্বামীর হত্যাকারীদের ফাঁসি চাই বলে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন এই নারী।

মোরেলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তদন্ত মো. শাজাহান আহমেদ বলেন, ধারাল অস্ত্রের আঘাতে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নিলে জাহাঙ্গীর মারা যায়। পুলিশ হামলাকারী ফরিদকে আটকের জন্য  অভিযান শুরু করেছে। এছাড়া এই ঘটনায় অন্য কেউ জড়িত আছে কিনা সে বিষয়েও পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে। নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণের প্রক্রিয়া চলছে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

প্রতিনিধি/এএ