রোববার, ২১ এপ্রিল, ২০২৪, ঢাকা

মাদক ব্যবসায় বাধা দেওয়ায় যুবককে মারধর

উপজেলা প্রতিনিধি, সাভার
প্রকাশিত: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৭:৪২ এএম

শেয়ার করুন:

মাদক ব্যবসায় বাধা দেওয়ায় যুবককে মারধর

ঢাকার সাভারে মাদক ব্যবসায় বাধা দেওয়ায় এক যুবককে প্রকাশ্যে পিটিয়ে জখম করার অভিযোগ উঠেছে।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সাভার পৌরসভার পার্বতীনগর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সাভার মডেল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে।


বিজ্ঞাপন


সাভার মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) নয়ন কারকুন বিষয়টি জানিয়েছেন।

মারধরের শিকার ওই যুবকের নাম তানজিম ইসলাম আনান (২৪)। তিনি সাভারের ভাগলপুর এলাকার তাজুল ইসলামের ছেলে। বর্তমানে তিনি সাভার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

অভিযুক্তরা হলেন— সাভারের ব্যাংক কলোনি এলাকার মো. হাবিব (২১), আল আমীন (২১), শিহাব (২৫), সায়েম (২৫) ও রকি (২৭)।

অভিযোগপত্র সূত্রে জানা যায়, অভিযুক্ত হাবিব ও আল আমীন ভুক্তভোগী ওই যুবকের বাসার সামনে প্রতিনিয়ত মাদক কেনাবেচা করতেন। বিষয়টি নিয়ে তাদেরকে একাধিক বার বারণ করলে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে ভুক্তভোগী তানজিমকে বিভিন্ন হুমকি ধমকি প্রদান করে। এরই জের ধরে মঙ্গলবার দুপুরে পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী দলবল নিয়ে সাভারের পার্বতীনগর ধুপের মাঠে প্রকাশ্যে তার ওপর হামলা চালায় অভিযুক্তরা। এসময় তাদের হাতে থাকা বিভিন্ন দেশীয় অস্ত্র দিয়ে তার মাথার কানে ও পায়ের হাঁটুসহ শরীরের নানান স্থানে আঘাত করে। এসময় তার পকেটে থাকা ২০ হাজার টাকা ও দুটি মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়। পরে তার ডাক-চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়।  


বিজ্ঞাপন


তানজিম ইসলামের বাবা তাজুল ইসলাম বলেন, অভিযুক্ত হাবিব এবং আল আমীন মাদক কারবারি ও সেবনের সঙ্গে জড়িত। তারা প্রায়ই আমার বাড়ির সামনে মাদকদ্রব্য বিক্রি করতো। বিষয়টি নিয়ে প্রতিবাদ করায় ক্ষিপ্ত হয়ে আজ জনসম্মুখে দলবল নিয়ে আমার ছেলেকে বেধড়ক মারধর করেছে তারা। আমি এর সুষ্ঠ বিচারের দাবি জানাই।

সাভার মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) নয়ন কারকুন বলেন, এ ঘটনায় একটি অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

টিবি

ঢাকা মেইলের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

সর্বশেষ
জনপ্রিয়

সব খবর